বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪:৩৭ অপরাহ্ন

জীবন – জীবিকা নিয়ে বিপাকে মানুষ -! করোনায় অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ালেন কেন্দ্রীয় ছাত্র নেতা শাহ নেওয়াজ

বিশেষ প্রতিবেদক মোহাম্মদ অলিদ সিদ্দিকী তালুকদার
  • প্রকাশ : মঙ্গলবার, ৭ জুলাই, ২০২০
  • ৩৯২

করোনার পর আর্থিক কারণে বহু মানুষ বিষণ্ণতায় ভুগছেন। শুধু করোনাভাইরাসের তাণ্ডবে নয়, আর্থিক পরিস্থিতি ও বর্ণবিদ্বেষ মুলক আচরণের কারণে আমাদের বাংলাদেশের বহু মানুষের বিষণ্ণতায় ভুগছেন। এমন পরিস্থিতি পুরো সমাজ ব্যবস্থায় বিরুপ প্রভাব ফেলেছে। বেশ কয়েকমাস লকডাউন থাকায় প্রতিটি মানুষই অস্বাভাবিক পরিবেশে দিনাতিপাত করতে বাধ্য হয়েছেন। আর এ অবস্থায় স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে অনেকেই নানা সমস্যা অনুভব করছেন। যা আগে কখনো এমন পরিস্থিতি হয়নি বলে মনে করেন ছাত্র নেতা শাহ নেওয়াজ।

জীবন – জীবিকা নিয়ে বিপাকে মানুষ। বেড়েছে নিত্যপ্রয়োজীয় দ্রব্যমূল্য, বাস ভাড়া, বিদ্যুৎ, পানির বিল দ্বিগুণ, যাচ্ছে সরকারি – বেসরকারি চাকরি।
কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের নেতা শাহ নেওয়াজ বলেন সারা দেশের মানুষ উপার্জন নিয়ে বিপাকে পড়েছেন। জীবন বাজি রেখে জীবিকার জন্য কাজে যাচ্ছে মানুষ । কিন্তু মহামারি করোনার আঘাতে ব্যবসা – বাণিজ্য শিল্প সহ সামগ্রিক উৎপাদন ও অর্থনীতি আজ ধসে পড়েছে। তাঁর ফলে ৭০ % ভাগ মানুষের উপার্জন কমে গেছে। অথচ কমেনি জীবনযাত্রার ব্যয়। উল্টো মানুষের উপার্জন কমলেও বেড়েছে জীবনযাত্রার খরচ। কেননা গত কয়েকমাসে অব্যাহত ভাবে বেড়েছে চাল, ডাল, তেলসহ প্রায় সব ধরনের নিত্যপণ্য, মাছ, মাংস, ও শাকসবজির দাম। এরই মধ্যে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার যুক্তি দেখিয়ে দ্বিগুণ করা বৃদ্ধি করা বাস ভাড়া যা সাধারণ মানুষের জন্য কষ্টদায়ক বলে মন্তব্য করেন এই ছাত্র নেতা শাহ নেওয়াজ।

তিনি নোয়াখালী দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ায় করোনা দুর্যোগে কর্মহীনদের নগদ অর্থসহায়তা করলেন কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ নাওয়াজ । গত এক মাস ধরে তিনি হাতিয়া উপজেলার বিভিন্ন এলাকার দুস্থ, গরীব ও অসহায় কর্মহীন মানুষের মাঝে প্রায় তিন লক্ষাধিক নগদ অর্থ সহায়তা করেন।

এছাড়া এলাকায় সাধারণ পথচারী ও যানবাহনের চালকদের মাঝে করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে হ্যান্ড স্যানিটাইজার এবং মাস্ক বিতরণ করেন। এসময় উপজেলা ছাত্রদলের নেতৃবৃন্দ সহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ তার সঙ্গে ছিলেন।

কেন্দ্রীয় ছাত্র দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ নাওয়াজ বলেন, সার্বক্ষণিক মানুষের পাশে ছিলাম এবং আগামীতেও থাকবো। আমার জন্মস্থান হাতিয়া উপজেলায়, এখানকার মানুষদের প্রতি আমার অনেক দায়িত্ব রয়েছে। পাশাপাশি করোনাভাইরাস থেকে নিরাপদ থাকতে ঘরে থাকার পরামর্শ দিয়েছেন। অন্যদিকে বিশেষ প্রয়োজনে ঘরের বাইরে যেতে হলে অবশ্যই মাস্ক ব্যবহার, সাবান কিংবা হ্যান্ড স্যানিটাইজার বা হ্যান্ডওয়াশ দিয়ে হাত ধুতেও পরামর্শ দেন এই ছাত্রনেতা।

Share This Post

আরও পড়ুন