বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৩:২৬ অপরাহ্ন

ঈদগাঁহতে মাদক ব্যবসায়ী গরু চোরসহ আটক-৬ ইয়াবা, মদ,গরু উদ্ধার

কক্সবাজার প্রতিনিধি
  • প্রকাশ : শুক্রবার, ২৪ জুলাই, ২০২০
  • ২১৩

কক্সবাজার জেলা পুলিশ সুপারের ঘোষণা অনুযায়ী মাদক, সন্ত্রাসী, চোর -ডাকাতের বিরুদ্ধে চিরুনি অভিযান শুরু করেছে ঈদগাঁহ পুলিশ।

গত ২৪ ঘন্টায় গরু চোর, ইয়াবা ও মদ ব্যবসায়ীসহ আটক হয়েছে ৬ জন।

এ সময় উদ্ধার করা হয়েছে লুন্ঠিত গরু,৬০ পিস ইয়াবা এবং ৫০ লিটার চোলাই মদ।

শুক্রবার ২৪ জুলাই ভোর থেকে পৃথক সময়ে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।

আটকৃতরা হল ইসলামাবাদ ইউনিয়নের মধ্যম গজালিয়া এলাকার মোহাম্মদ হোসেনের ছেলে শীর্ষ ডাকাত, ৩ টি অস্ত্র মামলার পলাতক আসামী আবদুল করিম (৩২), ঈদগাঁহ মধ্যম মাইজ পাড়া এলাকার আবদু রশিদের ছেলে মোহাম্মদ ইলিয়াস, চৌফলদন্ডী ইউনিয়নের দক্ষিণ সাগর পাড় এলাকার আনছার করিমের ছেলে মোস্তাক আহমদ (২২), আনর আলীর ছেলে আরমান (১৯), সিকদার পাড়া এলাকার মোহাম্মদ কামালের ছেলে আয়াত উল্লাহ( ১৮) হায়দার পাড়া এলাকার নুরুল হকের ছেলে মোহাম্মদ সাগর (১৮)।

ঈদগাঁহ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ মোঃ আসাদুজ্জামান জানান, কক্সবাজারের মাননীয় পুলিশ সুপার মহোদয়ের নির্দেশক্রমে এবং কক্সবাজার জেলাকে আগামী ১৬ ডিসেম্বরের মধ্যে মাদক মুক্ত জেলা করার প্রত্যয়ে যে ঘোষণা এসেছে সেই মতে ঈদগাঁহ পুলিশও মাদকের বিরুদ্ধে চিরুনি অভিযান শুরু করেছে।

২৪ জুলাই বিকাল আনুমানিক ৫ টার দিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ঈদগাঁহ বাসস্ট্যান্ডে তদন্ত কেন্দ্রের এসআই মোহাম্মদ ফরিদ, এএসআই মহি উদ্দীনসহ একদল পুলিশ অভিযান চালিয়ে মধ্যম গজালিয়া এলাকার আবদুল করিমকে ৬০ পিস ইয়াবাসহ হাতে নাতে আটক করে।

তার বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনের আরো ৩ টি মামলার গ্রেফতারী পরোয়ানা জারী ছিল।

একইদিন এসআই ফরিদ ও এসএসআই মহি উদ্দীন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ঈদগাঁহ বাসস্ট্যান্ডের গ্রামীন ব্যাংকের পূর্ব পাশে এক বিল্ডিং এ অভিযান চালিয়ে মোহাম্মদ ইলিয়াসকে ৫০ লিটার চোলাইমদসহ তার আস্তানা থেকে ধৃত করে।

একই দিন ভোরে তদন্ত কেন্দ্রের এসআই মোহাম্মদ ইমরান, এএসআই নিজাম উদ্দিনসহ একদল পুলিশ ইসলামপুর ইউনিয়নের বামনকাটা এলাকা থেকে ৪ জন গরু চোরকে আটক করে।

জুমাবার বিকালে সংশ্লিষ্টদের মাধ্যমে ধৃত গরু চোরদের আদালতে সোপর্দ করা হয়।

ইয়াবা ব্যবসায়ী আবদুল করিম ও মদ ব্যবসায়ী ইলিয়াসকে আগামীকাল আদালতে সোপর্দ করা হবে বলে জানান অভিযানে নেতৃত্ব দেওয়া পুলিশ কর্মকর্তা এসআই মোহাম্মদ ফরিদ৷

তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ মোঃ আসাদুজ্জামান আরো জানান,এ অভিযান অব্যাহত আছে। মাদক ব্যবসায়ী ও সন্ত্রাসীরা যতই বড় প্রভাবশালী নেতাদের ছত্রছায়ায় থাকুক না কেন আইনের আওতায় আনা হবে।

Share This Post

আরও পড়ুন